শিকাগোর টয়লেটে

Share it:
ছেলেদের টয়লেট সবসময় মেয়েদের চাইতে নোংরা থাকে, মেয়েরা টয়লেটে শিল্প-সাহিত্যচর্চাও তেমন করে না,কেন করে না সেটা গবেষণার বিষয় হতে পারে। নির্জনে বসে মনের আনন্দে ছেলেরা যেখানে মনের মাধুরী মিশিয়ে চিত্রকর্ম করে বা মনের অবদমিত আবেগ, ইচ্ছাকে মুক্তি দেয়, মেয়েরা কেন সেটা করে না, জ্ঞানীগুণীরা হয়ত তাতে আলোকপাত করতে পারবেন, আমরা আপাততঃ মেয়েদের টয়লেটের ভেতর থেকে ঘুরে আসি। শিকাগোর এক হাসপাতালে এক ভদ্রলোক অনেক্ষণ যাবৎ ছেলেদের টয়লেটে যেতে চাচ্ছিল কিন্তু কেউ না কেউ সবসময় ভেতরে থাকে এজন্য যেতে পারছিল না। একজন নার্স লোকটার দুর্দশা দেখছিল, সে বলল, স্যার, আপনি মেয়েদের টয়লেট ব্যব হার করতে পারেন কিন্তু আপনাকে প্রমিজ করতে হবে যে আপনি টয়লেটের দেয়ালের কোন বাটন ব্যবহার করবেন না। ভদ্রলোক তাতে রাজী হয়ে টয়লেটে গেল, তারপর যা করার করল, এবং বসে থাকার সময় সে দেয়ালে বাটন গুলো লক্ষ্য করল। প্রত্যেকটা বাটনের গায়ে কিছু অক্ষর বসানো আছে যেমন, WW, WA, PP এবং লাল একটা বাটনে APR। সে ভাবল বাটন গুলো চেপে দেখলে কে আর দেখবে, কিউরিসিটির জয় হল, সে WW বাটন চাপল ইষৎ গরম পানি এসে তার পশ্চাৎদেশে স্প্রে করে দিল। কি মজার অনুভূতি, পুরুষের টয়লেটে এসব নাই কেন? আরও ভাল কিছু হবে এটা ভেবে সে WA বাটন চাপল, গরম পানির বদলে এবার গরম বাতাস এসে তার পশ্চাৎদেশ শুকিয়ে দিল। যখন ঐটা শেষ হল তখন সে PP বাটন চাপল এবং খুব সুগন্ধি পাউডারের একটা পাফ এসে তার তলদেশে সুগন্ধে ভরে দিল, তার মনে হল মেয়েদের রেস্টরুম আসলে আনন্দদায়ক!:) পাউডারের পাফ দেয়া শেষ হলে সে APR বাটন না চেপে থাকতে পারল না, যেটায় সে ভাবছিল সবচেয়ে বেশি মজা পাওয়া যাবে। জ্ঞান হওয়ার পরে সে দেখল হাসপাতালের বেডে শুয়ে আছে, এবং নার্স তার দিকে তাকিয়ে আছে। কি হয়েছে ! শেষ যেটা মনে পড়ছে আমি APR বাটন চাপছিলাম। APR বাটন হল অটোম্যাটিক প্যাড রিমুভার, বালিশের নীচে তোমার পিনাইস
Share it:

Post A Comment:

0 comments: